কমছে বেকারত্ব, বেড়েছে শ্রমিকদের কাজে যোগ দেওয়ার অনীহাও

কর্মসংস্থান

বিবি ডেস্ক : করোনা অতিমারীতে যেখানে মে মাসে বেকারত্বের হার কপালে ভাঁজ ফেলেছিল, সেখানে জুন মাস থেকে কিছুটা হলে স্বস্তির খবর দিল অর্থনৈতিক গবেষণা সংস্থা সেন্টার ফর মনিটারিং ইন্ডিয়ান ইকোনমি (CMII)।

মে মাসে দেশে বেকারত্বের হার ছিল ১১.৯ শতাংশ। সেখানে জুন মাসে তা কমে হয়েছে ৯.১৯ শতাংশ। তবে এখানে উল্লেখযোগ্য বিষয় হল কোভিড পূর্ববর্তী সময়ের তুলনায় কর্মীদের কাজে যোগ দেওয়ার হার বেশ কম। পাশাপাশি কম কর্মসংস্থানেরও হারও।

CMII-এর পরিসংখ্যান বলছে, জুনে দেশের শহরগুলিতে বেকারত্বের হার অনেকটাই কমে গিয়েছে। মে মাসে শহরে বেকারত্বের হার ছিল ১৪.৭৩ শতাংশ, সেখানে জুনে তা কমে হয়েছে ১০.০৭ শতাংশ।

তবে দেশের গ্রামগুলিতে বেকারত্বের হার কমার গতি স্লথ। মে মাসে দেশের গ্রামগুলিতে বেকারত্বের হার ছিল ১০.৬৩ শতাংশ, সেখানে জুনে তা কমে হয়েছে ৮.৭৫ শতাংশ।

করোনা অতিমারীর কারণেই শ্রমিকরা কাজে যোগ দিচ্ছেন না বলে মনে করা হচ্ছে। তার উপর আশঙ্কা রয়েছে করোনার তৃতীয় ঢেউকে নিয়ে। তাই শ্রমিকদের একাংশ ভাবছেন তৃতীয় ঢেউ-এর কারণে ফের যদি লকডাউন হয় তবে ফের কারখানা বন্ধ হবে, তখন ঘরে ফের সমস্যা হয়ে যাবে। তাই কাজে যোগ দিতে অনেকেই অনীহা প্রকাশ করছেন।

সংস্থাটির মতে ২০১৯-২০ অর্থবর্ষে গড়ে শ্রমিকদের কাজে যোগ দেওয়ার হার ছিল ৪২.৭ শতাংশ। এপ্রিলে তা কমে দাঁড়ায় ৩৫.৬ শতাংশে। পরে আগস্টে তা সামান্য বেড়ে দাঁড়ায় ৪১ শতাংশে ।

এই হিসাব থেকে দেখা যাচ্ছে, কোভিড পূর্ববতী অবস্থার তুলনায় পরবর্তী পর্যায়ে শ্রমিকদের কাজে যোগ দেওয়ার প্রবণতা ১.৭ শতাংশ কম ছিল। চলতি বছরের এপ্রিল-মে মাসে তা গড়ে হয়েছে ৪০ শতাংশ। জুনের শেষেও তা একই থাকবে বলে মত CMII-এর।

Be the first to comment

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.