বুধবারের বাজারেও বুলিশ ট্রেন্ড! কত দূর দৌড়াতে পারে নিফটি?

বিবিডেস্ক: পর পর দু-দিনের লম্বা দৌড়ের পর মঙ্গলবার কিছুটা ক্লান্ত শেয়ার বাজারের ছবি স্পষ্ট হলেও একটা অস্থিরতারও ইঙ্গিত ধরা পড়েছে। এনএসই নিফটি একটি ফ্ল্যাট নোট শেষ হওয়ার আগে ১০০ পয়েন্টের পরিসরে দুলতে শুরু করে। কেনাবেচা চলাকালীন ৫০ স্টকের সূচক মাঝেমধ্যেই সবুজে ওঠার চেষ্টা করে ঠিকই, কিন্তু সফল হতে পারেনি। সম্ভবত উঁচু বাজারে লাভের লক্ষ্মী ঘরে তোলার আশায় খুচরো বিনিয়োগকারী স্টক বিক্রির পথ ধরাতেই শেষমেশ ক্লান্ত হয়ে পড়ে নিফটি।

শেয়ার বাজারের বিশ্লেষকদের মতে, পর পর দু-দিনের লম্বা দৌড়ের পর নিফটির মাথায় যে লাট্টুর ঘূর্ণন সৃষ্টি হয়েছে, তা কাটিয়ে উঠে আপাতত নির্দিষ্ট দিকে যাত্রা শুরুর আগে ধন্ধে ভোগাটাই স্বাভাবিক।

নিফটি অবশেষে ১২ পয়েন্ট বা ০.১০ শতাংশ হ্রাস পেয়ে ১১,৫৮৮.২০ পয়েন্টে স্থিত হয়। তবে বাজারের প্রত্যাশা ছিল বেশ চড়া সুরেই বাঁধা। গত শুক্রবার এবং সোমবার লম্বা দৌড়ের রেশ থেকে যাওয়ার সম্ভাবনা থেকেই সেই প্রত্যাশা। কিন্তু পর পর দু-দিনে প্রায় ৮ শতাংশের বৃদ্ধির পর একটা সীমাবদ্ধ পরিসরে সূচক নিজেকে একত্রিত করার পথ ধরছে বলেই আপাত পর্যবেক্ষণে ধরা পড়েছে।

এই আপাত অবস্থান থেকে বাজারের চিরাচরিত রীতি মেনেই নিফটি যে আরও বেশ কয়েকটা ধাপ ভেঙে সামনের দিকে এগোবে, তেমনটাই ধারণা দিচ্ছে অতীত পরিসংখ্যান। সাময়িক স্বস্তি নিয়ে নিফটি ১১,৬৫০ থেকে ১১,৭০০ পয়েন্টের চুড়ো ছুঁয়ে দেখতে তেমনটাই বলছে টেকনিক্যাল ডেটা। তবে এটা কতটা স্থায়ী,তা বলা মুশকিল।

বুধবারের বাজারও নিফটি বুলিশ ট্রেন্ডের প্রভাব নিয়েই এগোবে,তেমনই ইঙ্গিতও পাওয়া যাচ্ছে। ১১,৬৫৫ এবং ১১,৭০০ বুধবারের নিফটিতে শক্তিশালী রেজিস্ট্যান্স হিসাবে কাজ করবে বলে আশা করা হচ্ছে। অন্য দিকে সাপোর্ট হতে পারে ১১,৫০০ এবং ১১,৪৩০ পয়েন্ট। সব মিলিয়ে কেনাবেচার ব্যপ্তিতে আরও বিস্তৃতি দেখা যেতে পারে বলেই ধারণা করা হচ্ছে।

Be the first to comment

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.